গেম খেলা যাবে ইউটিউবে

গেম খেলা যাবে ইউটিউবে

youtube-game-itগেইমিংয়ের জন্য আলাদা সাইট ও অ্যাপ চালু করবে ওয়েব জায়ান্ট গুগলের মালিকানাধীন ভিডিও-শেয়ারিং সাইট ইউটিউব। অ্যামাজনের মালিকানাধীন স্ট্রিমিং সার্ভিস টুইচের বিপরীতে সরাসরি প্রতিদ্বন্দ্বীতা করবে ‘ইউটিউব গেইমিং’।

বিবিসি জানিয়েছে, ‘ইউটিউব গেইমিং’য়ে গেইম ও গেইমার উভয়েরই আলাদা প্রোফাইল থাকবে। চলতি বছরেই এই সেবা চালু হবে বলে জানিয়েছে গুগল কর্তৃপক্ষ।

এক ব্লগ পোস্টে ইউটিউব গেইমিং-এর প্রোডাক্ট ম্যানেজার অ্যালান জয়েস বলেন, ‘ইউটিউবে ভিডিওর পুরোপুরি নতুন একটি ধারা সৃষ্টি করেছে গেইমিং। এবার আমাদের পালা কেবল গেইমারদের জন্য তৈরি কিছু দেওয়ার।’

গেইমিংবিষয়ক ভিডিওগুলোর আলাদা কদর রয়েছে ফেইসবুকে। কোনো গেইম কীভাবে খেলতে হবে তার বিশ্লেষণ থেকে শুরু করে গেইমকেন্দ্রিক মিউজিক ভিডিওগুলোর রয়েছে আলাদা জনপ্রিয়তা।

একক পেইজে ২৫ হাজার গেইমিং পোর্টালের ডেটার সমন্বয় করবে ইউটিউব গেইমিং। বিবিসি জানিয়েছে, ইউটিউব গেইমিংয়ের মাধ্যমে টুইচ ভক্তদের একটি বড় অংশকে আকৃষ্ট করার পরিকল্পনা করছে গুগল। প্রাথমকি অবস্থায় কেবল যুক্তরাষ্ট্র আর যুক্তরাজ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে ইউটিউব গেইমিংয়ের সেবা।

এসবিসি/বিবিসি/ওএফ/এসবি